কোথায় ব্লগিং শুরু করবেন ওয়ার্ডপ্রেস না ব্লগার থেকে (WordPress vs Blogger)

WordPress vs Blogger
ব্লগিং শুরু করতে চাচ্ছেন? কোথায় থেকে শুরু করবেন বা কোন ব্লগিং প্ল্যাটফর্ম নির্বাচন করবেন, ওয়ার্ডপ্রেস না ব্লগার থেকে শুরু করবেন? এই প্রশ্ন গুলা প্রায় সব নতুন ব্লগার আছেন বা যারা ব্লগিং শুরু করতে চাচ্ছেন তাদের মনে উদয় হয়। তাই আজ আমি আপনাদের এই বিষয়ে বিস্তারিত বলতে যাচ্ছি। যাতে আপনাদের ব্লগিং প্ল্যাটফর্ম প্ল্যাটফর্ম নির্বাচন করা সহজ হয়।

২০২০ সালে এসে, প্রযুক্তির এই যুগে সবারই আজকাল ইমেইল, ফেসবুক একাউন্ট আছে। ফেসবুক ওয়ালে লেখালেখি করতে করতে অনেকে আজ ফেমাস একজনও। সমান ভাবেই ব্লগের সংখ্যা ও নতুন নতুন ব্লগার তৈরি হচ্ছে দিনদিন। তাই ব্লগিং করার জন্য ভাল প্ল্যাটফর্ম নির্বাচন অতীব জরুরি একটা বিষয়। তা নাহলে আপনার কষ্টে গড়ে তোলা ব্লগটি সফল হবে না। ওয়ার্ডপ্রেস ও ব্লগার হচ্ছে দুটি জনপ্রিয় ব্লগিং প্ল্যাটফর্ম। তাহলে দেখে নেই কোনটায় কি কি সুবিধা ও কোনটা ভাল। (বিঃদ্রঃ এই পুষ্টে WordPress.comBlogger তুলনা করব। তা WordPress.Org ও Blogger নয়। WordPress.com আর WordPress.org এক না।)

ফ্রি ব্লগ


ওয়ার্ডপ্রেস ব্লগ টোটালি ফ্রি এর জন্য কোনো ফি দিতে হয় না। ফ্রিতেই আজীবন ব্লগিং করতে পারবেন।

ব্লগার গুগলের একটি সেবা। এটা একদম ফ্রি এর জন্য কোনো ফি দিতে হয় না।

ডোমেইন


ওয়ার্ডপ্রেস ব্লগে একটি সাব ডোমেইন ফ্রি দিবে। তবে Domain এড করলে তাদের কাছ থেকেই ডোমেইন কিনতে হবে। এর জন্য ফি দিতে হবে।

ব্লগারে ফ্রি সাবডোমেইন পাবেন। কাস্টম Domain যুক্ত করতে পারবেন। এর জন্য যেকোনো ডোমেইন কোম্পানির কাছ থেকে ডোমেইন নিয়ে সাইটে যোগ করতে পারবেন।

থিম ও ডিজাইন


ওয়ার্ডপ্রেস ব্লগে কাস্টম থিম বা প্লাগ-ইন আপলোড করতে পারবেন না। যেগুলা শুধুমাত্র ওয়ার্ডপ্রেস ডাইরেক্টরিতে পাওয়া যায় সেগুলাই ব্যবহার করতে হবে। কাস্টম বা ইচ্ছা মত থিম ব্যবহার করতে গেলে তাদের ফি বা টাকা দিয়ে প্যাকেজ কিনতে হবে।

ব্লগারে ইচ্ছা মত থিম আপলোড করতে পারবেন। যেকোনো জায়গা থেকে ফ্রি / পেইড থিম নিয়ে ব্লগ চালাতে পারবেন।

বিজ্ঞাপন প্রদর্শন


ওয়ার্ডপ্রেসে কোনো বিজ্ঞাপন দেখাতে পারবেন না। ব্লগ দিয়ে কোনো কিছু সেল করতে পারবেন না।

ব্লগারে বিজ্ঞাপন দেখাতে পারবেন। এছাড়া গুগলের এডসেন্স ডাইরেক্টলি সার্পুট করে। এডসেন্স স্ট্যাটিক পেইজ আছে। ইচ্ছা মত বিজ্ঞাপন দেখাতে পারবেন।

স্টোরেজ


ওয়ার্ডপ্রেস সাইটের স্টোরেজ বা জায়গা ৩ জিবি। যা দিয়ে পার্সোনাল ব্লগ চালাতে পারবেন। প্রফেশনাল ব্লগ চালানো যাবে না।

ব্লগারে ১০ জিবি ডাটা স্টোরেজ সুবিধা আছে। যা দিয়ে পার্সোনাল ও প্রফেশনাল ব্লগ চালাতে পারবেন সমস্যা ছাড়াই।


মূলকথা, আপনি যদি প্রফেশনাল ব্লগার হতে চান তা হলে ব্লগার আপনার জন্য পারফেক্ট চয়েস। কারণ ব্লগারে বিজ্ঞাপন দেখিয়ে আয় করতে পারবেন যা ওয়ার্ডপ্রেস পারবেন না। এছাড়া ব্লগারে স্টোরেজ সুবিধাও বেশি।